রাউজানে পাসের হার ৯০.৩৫ শতাংশ

শফিউল আলম, রাউজানঃ চট্টগ্রামের রাউজানে এসএসসি পরীক্ষার ফলাফল ঘোষনার পর রাউজানের শিক্ষাঙ্গনগুলোতে আনন্দ উচ্ছ্বাসে মেতে উঠেন কৃতকার্য হওয়া শিক্ষর্থীরা। ভালো ফলাফল অর্জনে শিক্ষার্থীদের বাঁধভাঙা আনন্দ উচ্ছ্বাসে মেতে উঠেন শিক্ষক, অভিভাবকরা। সকালে উপজেলার গুজরা শ্যামাচরণ উচ্চ বিদ্যালয়ে গিয়ে দেখা গেছে ফলাফল প্রকাশের পর ভালো ফলাফল অর্জন করায় বিদ্যালয়ের পক্ষ থেকে কৃতি শিক্ষার্থীদের মিষ্টি মুখ করানো হয়। একই চিত্র দেখা গেছে, পশ্চিম গুজরা উচ্চ বিদ্যালয়, গশ্চি শিশুবাগ, চুয়েট স্কুল এন্ড কলেজ, রাউজান আর আর এ সি সরকারী মডেল উচ্চ বিদ্যালয় সহ রাউজানের প্রতিটি শিক্ষাঙ্গনে। ঘোষিত ফলাফল বিশ্লেষণে দেখা গেছে, এবার এসএসসিতে পাশের হার বাড়লেও কমেছে জিপিএ-৫। অন্যদিকে দাখিলে জিপিএ-৫ ও পাসের হার উভয় বেড়েছে। গতকাল রোববার প্রকাশিত ফলাফল থেকে এই তথ্য পাওয়া গেছে। এবার এসএসসি পাসের হার ৯০.৩৫ শতাংশ, জিপিএ-৫ পেয়েছেন ২১৬জন শিক্ষাথী। এছাড়া দাখিল পরীক্ষায় পাসের হার ৯৩.৩৪ শতাংশ, জিপিএ-৫ পেয়েছেন ৬২জন। যদিওবা গত বছর এসএসসিতে পাসের হার ছিল ৭৫.৩৬, জিপিএ-৫ পেয়েছিল ২৫১জন এবং দাখিল পরীক্ষায় পাসের হার ছিল ৯০.৪১। জিপিএ-৫ পেয়েছিলেন ১৬জন শিক্ষার্থী। এসএসসি পরিক্ষায় গত বছরের তুলনায় পাসের হার বেড়েছে ১৫ শতাংশ, তবে জিডিএ-৫ কমেছে ৩৫জন। অন্যদিকে দাখিল পরীক্ষায় জিপিএ-৫ ও পাসের হার উভয় বেড়েছে। পাসের হার বেড়েছে প্রায় ৩ শতাংশ এবং জিপিএ বেশি পেয়েছেন ৪৬জন শিক্ষার্থী। প্রকাশিত ফলাফল বিশ্লেষণে দেখা যায়, এবার ৫৭টি উচ্চ বিদ্যালয় থেকে এসএসসি পরিক্ষায় অংশগ্রহণ করেন ৪হাজার ৪৭৯জন শিক্ষার্থী। তৎমধ্যে পাস করেন ৪ হাজার ৪৭জন শিক্ষার্থী। ৩৭টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের মধ্যে জিপিএ-৫ পেয়েছেন ২১৬জন, পাসের হার ৯০.৩৫ শতাংশ। শতভাগ পাস করেছে চুয়েট স্কুল অ্যান্ড কলেজ ও হলদিয়া উচ্চ বিদ্যালয়। সর্বোচ্চ ৭২জন জিপিএ-৫ পেয়েছে চুয়েট স্কুল অ্যান্ড কলেজ। জিপিএ-৫ এর দিকে দ্বিতীয় স্থানে রাউজান আর আর এসি মডেল সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়। এই শিক্ষা প্রতিষ্ঠান থেকে ১৯৭জন পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করেন উত্তীর্ণ হয় ১৯২জন শিক্ষার্থী। অন্যদিকে শতভাগ পাস করলেও মাত্র একজন জিপিএ-৫ পেয়েছে হলদিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ে। এদিকে রাউজানের ২২টি মাদরাসা থেকে দাখিল পরিক্ষায় অংশগ্রহণ করেন ৮৭১জন। তৎমধ্যে পাস করেন ৮১৩জন। ১১ প্রতিষ্ঠানের ৬২জন শিক্ষার্থী জিপিএ-৫ পেয়ে উত্তীর্ণ হন। দাখিলে পাসের হার ৯৩.৩৪ শতাংশ। মোট পরীক্ষার্থী ১৪৪ জন। জিপিএ ৫ =৭২জন।শতভাগ পাস।এছাড়া কারিগরি শিক্ষাবোর্ডের অধিনে রাউজানের ৫টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ৩৭৫জন শিক্ষার্থী পরিক্ষায় অংশগ্রহণ করেন পাস করেছেন ৩৩২জন। জিপিএ-৫ পেয়েছেন তিন প্রতিষ্ঠানের ১১জন শিক্ষার্থী। চুয়েট স্কুলের সহকারি প্রধান শিক্ষক মুজিবুর রহমান জানান, এই প্রতিষ্ঠানের ১৪৪ জন পরীক্ষার্থী শতভাগ পাস করেছে। তন্মধ্যে জিপিএ ৫ পেয়েছে ৭২জন। গুজরা শ্যামাচরণ উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক কনক দাশ বলেন, এবারের এসএসসি পরীক্ষায় পরীক্ষার্থী ৫৩ জন পরীক্ষার্থী অংশ নিয়ে পাশ করেছে ৫১, জিপিএ -৫ পেয়েছে ৪ জন, পাশের হার ৯৬.২২%। ভালো ফলাফল অর্জনে শিক্ষকদের পাশাপাশি পরিচালনা কমিটি ও অভিভাবকদের ধন্যবাদ জানান। পশ্চিম গুজরা উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী প্রধান শিক্ষক শেখর ঘোষ আপন বলেন, শিক্ষার্থীদের ভালো ফলাফলে একজন শিক্ষক গর্বিত হন। জিপিএ-৫ পাওয়া শিক্ষার্থীরা প্রত্যাশিত ফলাফল অর্জনে শিক্ষক ও পিতা-মাতার প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।